ADS
হেডলাইন
◈ ঢালাওভাবে বিদেশি পরামর্শক নিয়োগ নয়: প্রধানমন্ত্রী ◈ সাংবাদিক রোজিনা ইসলামের নিঃশর্ত মুক্তির দাবি জাতীয় পার্টির ◈ ভুল স্বীকার করলেন নোবেল ◈ লিবিয়া উপকূলে নৌকাডুবি, ৩৩ বাংলাদেশি উদ্ধার ◈ স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের সংবাদ ব্রিফিং বর্জনের ঘোষণা ◈ নথিগুলো প্রকাশ পেলে দেশের ক্ষতি হয়ে যেত: স্বাস্থ্যমন্ত্রী ◈ জুনে স্কুল-কলেজ খুলতে চায় শিক্ষা মন্ত্রণালয় ◈ রোজিনা বৃহস্পতিবার জামিন পাবেন, আশা স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর ◈ বাংলা একাডেমির সভাপতি হলেন অধ্যাপক রফিকুল ইসলাম ◈ মুক্তির দিনেই ইতিহাস গড়েছে সালমানের ‘রাধে’ ◈ বাংলাদেশ-শ্রীলঙ্কা চূড়ান্ত সময়সূচি ◈ নেত্রকোনায় বজ্রপাতে সাতজনের মৃত্যু ◈ এবার রেড ক্রিসেন্ট ভবনে ইসরাইলি বিমান হামলা ◈ কাশিমপুর কারাগারে সাংবাদিক রোজিনা ◈ বিসিবির সম্প্রচার স্বত্ব কিনল বাংলাদেশি প্রতিষ্ঠান ◈ সিলেটে ছুরিকাঘাতে চীনা নাগরিক নিহত ◈ জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের সব পরীক্ষা স্থগিত ◈ রাজধানীতে স্বস্তির বৃষ্টি ◈ করোনায় আরও ৩০ মৃত্যু, শনাক্ত ১২৭২ ◈ করোনার বছরেও শীর্ষ রেমিট্যান্স আহরণকারী দেশের তালিকায় বাংলাদেশ
হোম / আন্তর্জাতিক / বিস্তারিত
ADS

আফগানিস্তান থেকে মার্কিন সেনা প্রত্যাহার নিয়ে ভারতের উদ্বেগ

১৫ এপ্রিল ২০২১, ১০:৩০:৫৩

মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র ও সামরিক জোট ন্যাটো তাদের সেনা আফগানিস্তান থেকে প্রত্যাহারের সিদ্ধান্ত নিয়েছে। আগামী মাস থেকে এ প্রক্রিয়া শুরু হবে। তবে এ সিদ্ধান্তে খুশি হতে পারেনি ভারত। বিষয়টি নিয়ে উদ্বেগ প্রকাশ করেছেন ভারতীয় প্রতিরক্ষা বাহিনীর প্রধান জেনারেল বিপিন রাওয়াত। খবর রয়টার্সের।

এদিকে ভারতীয় বিশেষজ্ঞদের বরাতে দ্য হিন্দু বলছে, তালেবান ও আঞ্চলিক নিরাপত্তা নিয়ে ভারতের উদ্বেগ বেড়েছে।

বুধবার মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন ঘোষণা দেন, আফগানিস্তান থেকে সব মার্কিন সেনা প্রত্যাহার করা হবে। এ বছরের সেপ্টেম্বরের মধ্যেই এ প্রক্রিয়া শেষ করা হবে।

বৃহস্পতিবার এক সুরক্ষা সম্মেলনে ভারতীয় প্রতিরক্ষা মন্ত্রী বলেন, আফগানিস্তান থেকে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র ও ন্যাটো বাহিনীর প্রস্তাবিত সেনা প্রত্যাহারের সিদ্ধান্ত নিয়ে উদ্বিগ্ন ভারত। কারণ, সেনা প্রত্যাহারের ফলে দেশটিতে তৈরি হওয়া শূন্য স্থানটিতে “বিঘ্নকারীরা” পদক্ষেপ নিতে পারে, এমন শঙ্কা রয়েছে।

তবে আফগানিস্তান থেকে সেনা প্রত্যাহার করলেও দেশটিকে সমর্থন দিয়ে যাবে যুক্তরাষ্ট্র। এই সমর্থন কোনোভাবেই সামরিক হবে না বলে প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন। হোয়াইট হাউসে এক বক্তৃতায় তিনি বলেন, ‘এখন সময় এসেছে দীর্ঘতম যুদ্ধটি বন্ধ করার।’

বাইডেন বলেন, আফগানিস্তানে আমাদের সামরিক উপস্থিতি প্রসারিত বা প্রসারিত করার চক্র আমরা অব্যাহত রাখতে পারি না। তাদের সঙ্গে সামরিকভাবে জড়িত থাকবো না। তবে আমাদের কূটনৈতিক ও মানবিক কাজ অব্যাহত থাকবে এবং আমরা আফগানিস্তান সরকারকে সমর্থন অব্যাহত রাখবো।

বিবিসি জানিয়েছে, এখন পর্যন্ত প্রায় আড়াই হাজার মার্কিন সেনা ও সাড়ে ৯ হাজার ন্যাটো আফগান মিশনে অংশ নিতে দেশটিতে অবস্থান করছে।

ADS ADS

প্রতিছবি ডট কম’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Comments: