ADS
ব্রেকিং নিউজঃ
হোম / অর্থনীতি / বিস্তারিত
ADS

রিজার্ভ থেকে শ্রীলঙ্কাকে ২০ কোটি ডলার দিচ্ছে বাংলাদেশ

২৬ মে ২০২১, ৮:১১:২৬

মহামারী করোনাভাইরাসের কারণে তাদের বৈদেশিক মুদ্রার রিজার্ভ বা মজুতে টান পড়ায় এশিয়ার বিভিন্ন দেশ থেকে ডলার ধার করছে শ্রীলঙ্কা। দেশটির অন্যতম আয়ের খাত পর্যটন বাণিজ্য ভেঙে পড়ায় বৈদেশিক বিনিময়ে প্রতিনিয়ত মান হারাচ্ছে দেশটির মুদ্রা রুপি। এমন পরিস্থিতিতে বাংলাদেশ সরকারও দক্ষিণ এশিয়ার দেশটিকে কেন্দ্রীয় ব্যাংকের বৈদেশিক মুদ্রার রিজার্ভ থেকে ২০ কোটি ডলার দেওয়ার আশ্বাস দিয়েছে।

বাংলাদেশ ব্যাংক সূত্রে জানা গেছে, গত রবিবার বাংলাদেশ ব্যাংকের পরিচালনা পর্ষদ রিজার্ভ থেকে শ্রীলঙ্কাকে এই ডলার দেওয়ার ব্যাপারে নীতিগত সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। ঋণ বা ধার হিসেবে নয় ডলারের সঙ্গে শ্রীলঙ্কান রুপি অদলবদল বা সোয়াপ করেই ২০ কোটি ডলার দেওয়া হবে। এর বিপরীতে বাংলাদেশ কিছু সুদও পাবে।

গত ১৯ মার্চ ঢাকায় আসেন শ্রীলঙ্কার প্রধানমন্ত্রী মাহিন্দা রাজাপক্ষে ঢাকায় মুজিব চিরন্তন অনুষ্ঠানে যোগ দিতে আসেন। সেসময় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সঙ্গে আনুষ্ঠানিক বৈঠক করেন মাহিন্দা রাজাপক্ষে। ওই বৈঠকের পরিপ্রেক্ষিতে সম্প্রতি শ্রীলঙ্কার কেন্দ্রীয় ব্যাংকের গভর্নর ডব্লিউ ডি লক্ষ্মণ বাংলাদেশ ব্যাংকের গভর্নরের কাছে ডলার চেয়ে চিঠি দেন। গত রবিবার বাংলাদেশ ব্যাংকের পরিচালনা পর্ষদের সভায় বিষয়টি উত্থাপন করা হয়।

কেন্দ্রীয় ব্যাংক সূত্রে জানা যায়, বাংলাদেশের বৈদেশিক মুদ্রার রিজার্ভ এখন ৪৫ বিলিয়ন ছুঁই ছুঁই। এই রিজার্ভ থেকে শ্রীলঙ্কাকে ২০ কোটি ডলার দেওয়ার সিদ্ধান্ত হয়। শ্রীলঙ্কা এই ২০ কোটি ডলারের সমপরিমাণ তাদের মুদ্রা (রুপি) বাংলাদেশকে দেবে। এর বিপরীতে দেড় থেকে ২ শতাংশ সুদ পাবে বাংলাদেশ ব্যাংক।

জানা গেছে, শ্রীলঙ্কাকে স্বল্প সময়ের জন্য এই ২০ কোটি ডলার দেওয়া হবে। এর আগেও দেশটিকে এমন সহায়তা করেছিল বাংলাদেশ। এবার তাদের কাছে শর্ত তুলে ধরে প্রস্তাব পাঠানো হবে। প্রস্তাবে তারা রাজি হলে দ্রুতই প্রক্রিয়া সম্পন্ন হবে।

করোনাভাইরাসের কারণে শ্রীলঙ্কার অর্থনীতি গত ৭৩ বছরের মধ্যে বড় মন্দায় পড়েছে। চীন থেকে ৫০ কোটি ডলার ঋণ নেওয়ার পর তাদের বৈদেশিক মুদ্রার রিজার্ভ বেড়ে হয়েছে ৪৪৭ কোটি ডলার। পাশাপাশি ভারত থেকেও ডলার চেয়েছে তারা।

ADS ADS

প্রতিছবি ডট কম’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Comments: