ADS
ব্রেকিং নিউজঃ
হোম / লাইফস্টাইল / বিস্তারিত
ADS

চিংড়ি মাছ দিয়ে করলার রেসিপি

৪ জুন ২০২১, ৬:১৪:৫১

করলা তিতা জাতীয় সবজি। তিতার কারণে অনেকেই এই সবজি খেতে চান না। কিন্তু করলাতে রয়েছে বিভিন্ন রোগের মহৌষধ। ডায়াবেটিস ও এলার্জি রোগীদের জন্য এটি একটি উত্তম সবজি। তাই যেকোনো মূল্যেই হোক খাবারের তালিকায় করলা রাখতে হবে। আপনার যেভাবে খেলে রুচি হবে সেই আইটেমে রান্না করতে পারেন।

চিংড়ি দিয়ে করলা রান্না করে খেতে পারেন। চিংড়ি খুবই সুস্বাদু খাবার। সবাই চিংড়ি খেতে পারে। তাই চিংড়ি দিয়ে রান্না করে করলার সবজি খেতে পারেন।

এর রেসিপি একুশে টিভি অনলাইনে দেওয়া হলো-

উপকরণ-

১) মাঝারি সাইজের কয়েকটি করলা।

২) এক পোয়া চিংড়ি মাছ।

৩) পেঁয়াজ বাটা দুই টেবিল চামচ।

৪) রসুন বাটা এক চা চামচ।

৫) জিরা বাটা হাফ চা চামচ।

৬) শুকনা মরিচ গুঁড়া পরিমাণ মতো।

৭) হলুদ গুড়া হাফ চা চামচ।

৮) কয়েকটি কাচা মরিচ ফালি।

৯) লবন পরিমাণ মতো।

১০) তেল।

প্রণালি :

প্রথমে করলা সুন্দরভাবে কুচি কুচি করে কেটে লবণ দিয়ে ধুয়ে নিন। লবণ দিয়ে ধুলে তিতা কিছুটা কমে যাবে। এরপর চিংড়ি মাছ বেছে ধুয়ে নিন। এখন কড়াইতে তেল গরম করে পিঁয়াজ বাটা, রসুন বাটা ও জিরা বাটা দিয়ে হালকা ভাজুন। ভাজা হয়ে গেলে শুকনা মরিচের ‍গুঁড়া ও হলুদ গুঁড়া দিন। একটু নেড়ে কাঁচা মরিচের কয়েটি ফালি দিয়ে চিংড়ি মাছগুলো ঢেলে দিন। লবণ দিয়ে হালকা আঁচে নাড়ুন। একটু পানি দিয়ে নিন। পানি ফুটে গেলে করলা ঢেলে দিন। একসঙ্গে মিশিয়ে নাড়তে থাকুন। যত নাড়বেন ততই মসলাগুলো ভিতরে ঢুকবে। এখন আবার একটু পানি ঢেলে ঢাকনা দিয়ে কয়েক মিনিট ঢেকে দিন। কিছুক্ষণ পর ঢাকনা উঠিয়ে নাড়ুন। পানি কমে না আসা পর্যন্ত চুলাতেই রাখুন। তবে একেবারেই শুকনো করবেন না। একটু ভিজা ভিজা থাকবে। করলা পুরোপুরি সিদ্ধ হয়ে গেলে অন্য একটি পাত্রে নামিয়ে ফেলুন।

ব্যচ হয়ে গেলে চিংড়ি দিয়ে করলা সবজি। এখন গরম ভাতের সঙ্গে পরিবেশন করুন। এভাবে রান্না করলে নিশ্চই করলার তরকারি খাওয়া সম্ভব।

তথ্যসূত্র : রান্নাঘর।

ADS ADS

প্রতিছবি ডট কম’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Comments: